এই ঘোষণা না দিলে সরকারের পাশে আর থাকবে না হেফাজত: আহমদ শফী

21736

অবিলম্বে রাষ্ট্রীয়ভাবে কাদিয়ানীদের কাফের হিসেবে ঘোষণা করতে সরকারের কাছে জোর দাবি জানিয়েছেন হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফী।
অন্যথায় সরকারের সঙ্গে হেফাজতে ইসলাম আর থাকবে না বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি। কাদিয়ানীদের রাষ্ট্রীয়ভাবে অমুসলিম ঘোষণার দাবিতে আন্তর্জাতিক মজলিসে তাহাফ্ফুজে খতমে নবুওয়াত বাংলাদেশ-এর নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার উদ্যোগে শনিবার অনুষ্ঠিত ইসলামী মহাসম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

আহমদ শফী বলেন, ‘কাদিয়ানীরা আমাদের নবী মুহাম্মদ (স:) কে শেষ নবী হিসেবে মানে না। তাই তারা কাফের। তাদের মুসলমান বলা যাবে না। মুসলমানদের কবরস্থানেও কাদিয়ানীদের কবর দেওয়া যাবে না। তাদের সঙ্গে কোনও ধরনের আত্মীয়তাও করা যাবে না।

প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে আল্লামা শফী বলেন, ‘আপনি দেশের ষোল কোটি মানুষকে জিজ্ঞেস করে দেখেন এ ব্যাপারে সবাই একমত। যদি কাদিয়ানীদের কাফের ঘোষণা না করা হয় তাহলে তোমাদের (সরকারের) পাশে আমরা থাকবো। আর যদি কাফের ঘোষণা না করা হয় তবে তোমাদের পাশে থাকব না। কাদিয়ানীরা এদেশে থাকতে পারবে হিন্দু অথবা অমুসলিম হয়ে।

মুসলমান হিসেবে কাদিয়ানীরা বাংলাদেশে থাকতে পারবে না।’ আল্লামা শফী দেশবাসী ও মুসলিম জাতির শান্তি কামনায় দোয়া করে সম্মেলনের সমাপ্তি ঘোষণা করেন।আন্তর্জাতিক মজলিসে তাহাফ্ফুজে খতমে নবুওয়াত বাংলাদেশের সভাপতি মাওলানা আবদুল কাদিরের সভাপতিত্বে দুপুর দেড়টায় শহরের মাসদাইর এলাকায় পৌর ঈদগাহ ময়দানে এ মহাসম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

আল্লামা শফী ছাড়াও আরও বক্তব্য রাখেন-হেফাজতে ইসলামের মহা-সচিব জুনায়েদ বাবুনগরী ও ঢাকা মহানগরের সভাপতি নূর হোসাইন কাশেমীসহ অন্যান্য নেতারা।