Breaking News

সহকর্মীর স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, সিলেটের পুলিশ সুপার সাখাওয়াতকে দণ্ড

সহকর্মীর স্ত্রীর সঙ্গে পরকীয়া, জুয়া থেকে অর্থ আদায়, আওয়ামী লীগ নেতাকে বেআইনি আটকসহ বিভিন্ন অপরাধে এক অতিরিক্ত ডিআইজি এবং তিন পুলিশ সুপারকে (এসপি) দণ্ড দিয়েছে সরকার। এর মধ্যে এক পুলিশ কর্মকর্তা সিলেটের সাবেক এসপি (পুলিশ সুপার) ছিলেন।
অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় সরকারি চাকরি বিধি অনুযায়ী দণ্ড হিসেবে ঊর্ধ্বতন এই চার পুলিশ কর্মকর্তার তিনজনকে ‘তিরস্কার’ দণ্ড প্রদান আর একজনের ‘বেতন বৃদ্ধি স্থগিত’ করা হয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরপাত্তা বিভাগ সম্প্রতি এ সংক্রান্ত পৃথক চারটি প্রজ্ঞাপন জারি করে।

ঊর্ধ্বতন এই চার পুলিশ কর্মকর্তা হলেন—পুলিশ সদরদপ্তরে (সাময়িক বরখাস্ত) সংযুক্ত অতিরিক্ত ডিআইজি (এর আগে চট্টগ্রাম রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি) মোহাম্মদ সাখাওয়াত হোসেন, বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজি অফিসে সংযুক্ত পুলিশ সুপার (বর্তমানে বিশেষ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) কাজী মো. ফজলুল করিম, গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. মিজানুর রহমান এবং ঢাকা মেট্রোপলিটন পু্লিশের (ডিএমপি) উপ-কমিশনার (যশোরের সাবেক অতিরিক্ত পুলিশ সুপার) মো. সালাউদ্দিন শিকদার।

জানা গেছে, পুলিশের অতিরিক্ত ডিআইজি মোহাম্মদ সাখাওয়াত হোসেন (বর্তমানে সাময়িক বরখাস্ত) পুলিশ সদরদপ্তরে সংযুক্ত রয়েছেন। এর আগে তিনি চট্টগ্রাম রেঞ্জের অতিরিক্ত ডিআইজি ও সিলেট জেলা পুলিশ সুপার ছিলেন।

সাখাওয়াতের বিরুদ্ধে অভিযোগ- তিনি অধীনস্থ এক এসআইয়ের স্ত্রীসহ একাধিক নারীর সঙ্গে পরকীয়ায় জড়ান। এছাড়া প্রায় রাতেই মদ্যপান করে বাসায় ফিরতেন।

অভিযোগকারী মিসেস নওশিনের (ছদ্ননাম) অভিযোগ তাকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন এবং যৌতুকের দাবি করতেন সাখাওয়াত হোসেন। এই অভিযোগে পুলিশ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে আদালতে চারটি মামলা হয়েছে।

এসব অভিযোগ সম্পর্কে জানতে গত বছর সাখাওয়াত হোসেনকে পুলিশ সদরদপ্তর থেকে কারণ দর্শানো হয়। পরে ডিআইজি পদমর্যাদার একজন কর্মকর্তা তদন্ত করে জানতে পারেন, একাধিক নারীর সাথে পরকীয়া, অনৈতিক কর্মকাণ্ড, প্রায় রাতেই মদ্যপ অবস্থায় বাসায় ফিরতেন সাখাওয়াত হোসেন।

এছাড়া নিজের স্ত্রীকে তালাক দিয়ে এসআইয়ের স্ত্রীকে বিয়ে করারও প্রমাণ পাওয়া গেছে। এতে পুলিশ বিভাগের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হয়েছে। পরে সরকারি কর্মচারি (শৃঙ্খলা ও আপিল) বিধি অনুযায়ী তাকে ‘তিরস্কার’ দণ্ড দেওয়া হয়েছে।- খবর ঢাকা টাইমসের।

Check Also

হাবিপ্রবির ৫ শিক্ষককে কুপিয়ে জখম, অফিস সহায়ক গ্রেফতার

দিনাজপুরের হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) পাঁচ শিক্ষককে কুপিয়ে জখমের অভিযোগে তাজুল …

Leave a Reply

Your email address will not be published.