Breaking News
Home / আন্তর্জাতিক / যুক্তরাষ্ট্র চীন ও রাশিয়ার সমকক্ষ হল পাকিস্তান

যুক্তরাষ্ট্র চীন ও রাশিয়ার সমকক্ষ হল পাকিস্তান

পাকিস্তান প্রথমবারের মতো সাবমেরিন থেকে উৎক্ষেপণযোগ্য বাবর-৩ ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে। ভারতের পারমাণবিক অস্ত্র বহনে সক্ষম অগ্নি সিরিজের পরপর দু’টি ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার পাল্টা পদক্ষেপ হিসেবে দেশটি এ পরীক্ষা চালিয়েছে বলে বিশ্লেষকেরা মনে করছেন। এত দিন ভূমি থেকে ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপে পাকিস্তানের সক্ষমতা ছিল। এবার দেশটি পানির নিচ থেকেও ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপের পরীক্ষায় সফলতা অর্জন করল। ফলে দেশটি সামরিক প্রযুক্তির বিকাশে আরো একধাপ এগিয়ে গেল।

 
বিশ্বের মাত্র কয়েকটি শক্তিধর রাষ্ট্রের সাবমেরিন থেকে ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ করার ক্ষমতা রয়েছে। এই পরীক্ষার মাধ্যমে পাকিস্তান ওই দেশগুলোর কাতারে শামিল হলো। দেশগুলো হলো যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, চীন ও ভারত। পাকিস্তানের ইন্টার সার্ভিস পাবলিক রিলেশন্স বিভাগ এক বিবৃতিতে জানায়, সোমবার ভারত মহাসাগরে অবস্থানরত একটি সাবমেরিন থেকে ক্ষেপণাস্ত্রটি উৎক্ষেপণ করা হয়। পরে এটি নির্দিষ্ট লক্ষ্যে সফলভাবে আঘাত হানে। বাবর-৩ ক্ষেপণাস্ত্র পারমাণবিক ওয়ারহেড বহন করে ৪৫০ কিলোমিটার দূরের লক্ষ্যে আঘাত হানতে সক্ষম।

 
পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ এক বিবৃতিতে সফল এ পরীক্ষার জন্য দেশটির জনগণ ও সশস্ত্রবাহিনীকে অভিনন্দন জানান। তিনি বলেন, ‘সফল এ পরীক্ষা সামরিক খাতে পাকিস্তানের প্রযুক্তিগত উন্নয়ন ও স্বনির্ভরতার প্রমাণ দেয়।’ দেশটির বাবর সিরিজের বেশ কয়েকটি ক্ষেপণাস্ত্র আছে। এর মধ্যে বাবর-৩ সবচেয়ে আধুনিক। বাবর-২ ক্ষেপণাস্ত্র ভূমি থেকে ভূমিতে আঘাত হানতে পারে। গত ডিসেম্বরে দেশটি এ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে। সফল এ পরীক্ষার কারণে ভারতের সাথে দেশটির দীর্ঘ দিনের উত্তেজনা আরো বাড়বে বলে মনে করা হচ্ছে।
উল্লেখ্য, ভারত ২০০৮ সালে সাবমেরিন থেকে পারমাণবিক বোমার সফল পরীক্ষা চালিয়েছে এবং ২০১৩ সালে সাবমেরিন থেকে ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছে। পাকিস্তানের ‘বাবর-৩’ ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার ব্যাপারে ভারতের পক্ষ থেকে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

Facebook Comments
Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.