সরকারকে বিপদে ফেলতে পূজামণ্ডপে কোরআন রাখা হয়েছে: ইউনাইটেড ইসলামী পার্টি

212

দেবী দুর্গার বোধনের মধ্য দিয়ে শুরু হয় বাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় পার্বণ শারদীয় দুর্গোৎসব। মহাসপ্তমীতে শুরু হয় দেবীদর্শন, দেবীর পায়ে ভক্তদের অঞ্জলি প্রদান ও প্রসাদ গ্রহণ।

নতুন খবর হচ্ছে, বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামী পার্টির চেয়ারম্যান মাওলানা মো. ইসমাইল হোসাইন বলেছেন, কিছুদিন আগে হেফাজত যেরকম তাণ্ডব চালিয়েছিল সে রকম আরেকটি তাণ্ডব ঘটাতে কুমিল্লায় সাম্প্রদায়িক হামলা ঘটানো হয়েছে। সরকারকে বিপদে ফেলতে, আমাদের দেশে অশান্তি তৈরি করার জন্য কুমিল্লার পূজামণ্ডপে কোরআন শরীফ রাখা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) জাতীয় প্রেস ক্লাবের মিলনায়তনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনটি থেকে এ কথা জানানো হয়।

সংবাদ সম্মেলনে ইসমাইল হোসাইন বলেন, যারাই এই ঘটনা ঘটিয়েছে, যারা এ ষড়যন্ত্রের সাথে জড়িত ‑ অনতিবিলম্বে তাদের পরিচয় জাতিকে জানিয়ে দিন। মুসলমানদের বিভ্রান্ত করার জন্য, আলেম সমাজকে বিভ্রান্ত করার জন্য, জামায়াত-বিএনপির ওই হেফাজত ‑ এই ষড়যন্ত্রের সঙ্গে সম্পৃক্ত।

তিনি বলেন, আমাদের দেশে কিছুদিন আগে হেফাজতওয়ালারা অন্যায়ভাবে এই দেশের আপামর জনতাকে বিপথগামী করার জন্য মামুনুল হককে ক্ষেপিয়ে দিয়ে এদেশের আলেম সমাজের ক্ষতি করেছে। আবারও ক্ষতিগ্রস্ত করার জন্য ধর্মভীরু জনগণকে রাজপথে নামার জন্য পূজামণ্ডপে ষড়যন্ত্র করে কোরআন রাখা হয়ে