খুলনায় গণসমাবেশে আসার সময় আ’লীগের হামলায় আহত বিএনপি কর্মী জিকোর মৃত্যু

BPL 2023 লাইভ দেখুন এই লিংকে  rtnbd.net/live

গত ২২ অক্টোবর বিএনপির খুলনা বিভাগীয় মহাসমাবেশে ট্রলারযোগে আসার সময় আ’লীগের হামলায় আহত শেখ সাজ্জাদুল ইসলাম জিকো (৩৫) আজ শুক্রবার ভোরে মারা গেছে। ঐ ঘটনায় জিকোসহ ২০ থেকে ২৫ জন গুরুতর জখম হন। এর মধ্যে জিকোর মাথায় গুরুতর আঘাত পেলে ফুলতলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। ওই সময় তাকে ১১টি সেলাই দেয়া হয়। পরবর্তীতে তিনি চিকিৎসা শেষে পায়গ্রাম কসবা নিজ বাড়িতে ফেরেন। এ ঘটনায় অসুস্থ থাকার পর ভোরে নিজ বাড়িতে তার মৃত্যু ঘটে। তিনি ফুলতলা ইউনিয়ন বিএনপির সদস্য ও মৃত শেখ শওকত হোসেনের পুত্র। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ২ শিশুকন্যাসহ বহু আত্মীয় স্বজন রেখে যান। বাদ আছর পায়গ্রাম কসবা কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে জানাযা শেষে পারিবারিক গোরস্থানে দাফন সম্পন্ন হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন মহানগর বিএনপির আহবায়ক এ্যাড. শফিকুল আলম মনা, জেলা বিএনপির আহবায়ক আমির এজাজ খান, মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিন, অধ্যাপক ডাঃ গাজী আঃ হক, এস এ রহমান বাবুল, জেলা বিএনপির যুগ্ন আহবায়ক আবু হোসেন বাবু ও আশরাফুল আলম নান্নু, ইউপি চেয়ারম্যান শেখ আবুল বাশার, বিএনপি নেতা শেখ লুৎফর রহমান, আনোয়ার হোসেন বাবু, বাবর আলী, মোল্যা মনিরুল ইসলাম প্রমুখ।

মহানগর বিএনপির আহবায়ক এ্যাড. শফিকুল আলম মনা জানান, ২২ অক্টোবর বিভাগীয় সমাবেশে যোগ দিতে আসার সময় দুপুর সোয়া ১২টার দিকে নেতাকর্মীদের ট্রলার বহরটি খুলনার ৫ নম্বর ঘাট এলাকায় পৌঁছালে সশস্ত্র আওয়ামীলীগ কর্মীরা হামলা চালিয়েছিল। সে হামলায় আহত বিএনপির কর্মী জিকো মারা গেছেন। আমরা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি।

Check Also

নির্বাচনের ফলাফল বর্জন করলেন হিরো আলম

এবার বগুড়া-৪ (কাহালু-নন্দীগ্রাম) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী আশরাফুল ইসলাম আলম ওরফে হিরো আলম ভোট গণনায় কারচুপির …

Leave a Reply

Your email address will not be published.