Breaking News

ভারতকে হারাতে পারলে জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটারকে বিয়ে করার ঘোষণা পাক অভিনেত্রীর

চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে যাওয়ার রেসে জমে ওঠেছে গ্রুপ-২। এ গ্রুপ থেকে সেমিতে যেতে পারবে দুইটি দল। কিন্তু এর রেসে টিকে রয়েছে চার দল। যেখানে টেবিল টপার ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকার সেমিতে যাওয়ার নিশ্চয়তা বেশি। কাগজে কলমে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানেরও সমূহ সম্ভাবনা রয়েছে। তবে তার জন্য অসাধ্যসাধন করার পাশাপাশি তাকিয়ে থাকতে হবে ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকার বাকি ম্যাচগুলোর দিকে। সেই সঙ্গে বৃষ্টি তো আছেই।

এদিকে এমন যখন সমীকরণ তখন নিজ দেশকে বিশ্বকাপের সেমিতে দেখতে অদ্ভূত এক প্রস্তাবনা দিয়েছেন পাকিস্তানের হায়দরাবাদে জন্মগ্রহণ করা পাকিস্তানি অভিনেত্রী শেহার শিনওয়ারি। মূলত ছোট পর্দার এই অভিনেত্রী ২০১৪ সালে একটি হাসির ধারাবাহিকে অভিনয় করে প্রচারে আসেন। অভিনয়ের জগতে খ্যাতি পাওয়ার পর শেহার দাবি করেছিলেন, তার পরিবার এবং এলাকার লোকজন চাননি যে, তিনি এই পেশায় আসুন। যদিও তার পরিবার শেহারের এই দাবিকে মানতে চায়নি।

আজ বৃহস্পতিবার ৩ নভেম্বর পাকিস্তানি এই অভিনেত্রীর টুইটের বরাত দিয়ে ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভি একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে এ অভিনেত্রী জিম্বাবুয়ে ক্রিকেটারদের উদ্দেশ্যে ভারতকে হারানোর আহ্বান জানিয়েছেন। সঙ্গে সঙ্গে এও জানিয়েছেন যে, তারা (জিম্বাবুয়ে) ভারতকে এ ম্যাচে হারাতে পারলে যে কোনও (জিম্বাবুয়ের) একজন ক্রিকেটারকে তিনি বিয়েও করবেন।

এদিকে পাকিস্তানের এই অভিনেত্রী আজ বৃহস্পতিবার টুইটে লিখেছেন, আমি একজন জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটারকে বিয়ে করব যদি তারা অলৌকিকভাবে পরের ম্যাচে ভারতকে হারাতে পারে। ইতিমধ্যেই শেহারের এই টুইটটি ২৪৮০ জন লাইক করেছেন, ১৩৫ জন রিটুইট করেছেন। সমাজমাধ্যমের একাংশ তার বক্তব্যকে সমর্থনও করেছেন।

এটাই অবশ্য প্রথম নয়, গত মঙ্গলবার বিশ্বকাপে ভারত-বাংলাদেশ ম্যাচ চলাকালীন শেহার অসংখ্য টুইট করতে থাকেন। সেই টুইটে তিনি বলেন, এই ম্যাচে ভারত কোনভাবেই জিততে পারবে না। জিতবে বাংলাদেশই।

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ভারত চার উইকেটে হেরে যাওয়ায় টুইটারে উল্লাস প্রকাশ করতে দেখা যায় পাকিস্তানের এই অভিনেত্রীকে। সে সময় শেহার দাবি করেছিলেন, ভারতের ক্রিকেট টিম আদতে ক্রিকেটটাই খেলতে পারে না। তাই অস্ট্রেলিয়ার মতো দেশের কাছে তাদের খেলা শেখা উচিত।

এদিকে শেহারের এমন টুইটকে অনেকেই দাবি করেন তিনি একজন অবসাদগ্রস্ত মানুষ। হতাশা থেকেই তিনি এমন মন্তব্য করছেন। একজন উপহাস করে লেখেন, আমার এটা ভেবেই খুব খারাপ লাগছে যে, আপনাকে সারা জীবনই বিয়ে না করে একা থাকতে হবে।

ওই ব্যক্তি লেখেন, জিম্বাবুয়ে কোনও অবস্থাতেই ভারতকে হারাতে পারবে না। অন্য একজন আবার শেহারকে উদ্দেশ্য করে লেখেন, ভারত-বাংলাদেশ ম্যাচে বাংলাদেশ হেরে যাওয়ার পরেই আপনার টুইটার অ্যাকাউন্টটি ডিলিট করে দেয়া উচিত ছিল। তবে শেহার সত্যিই কি জিম্বাবুয়ের কোনও ক্রিকেটারকে বিয়ে করতে পারবেন কি না, তা নির্ভর করবে আগামী রবিবার ভারত-জিম্বাবুয়ে ম্যাচের ফলাফলের পরই।

Check Also

মেসির শটটি ছিল ঘণ্টায় ১২২ কিলোমিটার গতির: ফিফা

আর্জেন্টিনার বিদায়ের বিউগল প্রায় বাজতেই শুরু করে দিয়েছিল। মেক্সিকোর বিপক্ষে গোলশূন্য প্রথমার্ধের পর অযুত ভক্তকুলও …

Leave a Reply

Your email address will not be published.