২০৪১ পর্যন্ত পরিকল্পনা নিয়েছি, ২১০০ সালের বাংলাদেশ নিয়েও ভাবছি: প্রধানমন্ত্রী

২০৪১ পর্যন্ত পরিকল্পনা নিয়েছি, ২১০০ সালের বাংলাদেশ নিয়েও ভাবছি: প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশে একটা বদ্বীপ উল্লেখ করে বলেছেন, আমরা ২০২১ থেকে ’৪১ সাল পর্যন্ত পরিকল্পনা গ্রহণ করেছি। ২১০০ সালের বাংলাদেশ কেমন হবে সে ব্যাপারেও আমরা ডেল্টা প্ল্যান গ্রহণ করেছি। আমরা বাঙালি জাতি নিজের পায়ে দাঁড়িয়ে, মাথা উঁচু করে বিশ্বের দরবারে দাঁড়িয়ে থাকব। আর কারও মুখাপেক্ষী হব না। আমাদের এই অগ্রযাত্রা চিরকাল অব্যাহত থাকবে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ এখন আর সস্তা শ্রমের দেশ নয়। আগে একসময় বাংলাদেশ সস্তা শ্রমের দেশ ছিল। এখন আমাদের দেশের লোকজন অনেক দক্ষ হচ্ছে। আমরা বিভিন্ন ট্রেনিংয়ে তাদের প্রশিক্ষণ দিয়ে দক্ষ কারিগর তৈরি করছি। এখান থেকে দক্ষতা অর্জন করে বিদেশে গিয়ে ভালো বেতনের চাকরি করছে।

আজ বুধবার (৪ মার্চ) ৮ম জাতীয় পণ্য মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নের ক্ষেত্রে এসএমই (ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প) গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে। একই সঙ্গে, বেকারত্ব দূর করে প্রচুর মানুষের কর্মসংস্থান সৃষ্টি করতে পারে। যুবকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, লেখাপড়া শিখে চাকরির পেছনে না ছুটে নিজেরা উদ্যোক্তা হোন, নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করুন।

তিনি বলেন, শুধু নিজেদের বাজারে নয়, ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের তৈরি পণ্য বিদেশে প্রচুর চাহিদা আছে। তাদের জন্য আমাদের মানসম্পন্ন পণ্য তৈরি করতে হবে। বিভিন্ন দেশে মার্কেট খুঁজে বের করতে হবে। ক্রেতারা কী ধরনের পণ্য চায়, এসব পণ্য আমাদেরকে তৈরি করতে হবে। এজন্য গবেষণার প্রয়োজন রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, চতুর্থ শিল্প বিপ্লব আসছে, এজন্য আমাদের প্রস্তুতি নিতে হবে। ডিজিটাল ট্রেনিং গ্রহণ করতে হবে। শুধু একটা সাবজেক্টে পাস করে বসে থাকলে হবে না। দেশ যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছে ডিজিটালের সঙ্গে তাল মিলিয়ে যুবকদের এগিয়ে যেতে হবে। তাকে নানা উদ্যোগ নিতে হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net