প্রধানমন্ত্রী ও আমি অপপ্রচারের শিকার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী ও আমি অপপ্রচারের শিকার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে সপরিবারে হত্যার আগে নানা ষড়যন্ত্র হয়েছিল উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, সাম্প্রতিক সময়েও আওয়ামী লীগ সরকারের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র হচ্ছে। একটি মহল নানাভাবে বর্তমান সরকারের বিরুদ্ধে অপপ্রচারে লিপ্ত। তারা সরকারের জনকল্যাণমূলক কাজকে আড়াল করতে চায়। জনগণের মধ্যে বিভ্রান্তি ছড়াতে এবং বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকারকে বেকায়দায় ফেলতে তাদের এমন অপপ্রয়াস। এই অপপ্রচারকারীদের মোকাবিলা করার জন্য আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

আজ শুক্রবার বিকেলে সিলেট জেলা ও মহানগর ছাত্রলীগের উদ্যোগে নগরীর কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। এ সময় তিনি বিভিন্ন সময়ে ছাত্রলীগকে জড়িয়ে মিডিয়ায় সংবাদ প্রকাশের বদঅভ্যাস ত্যাগ করার পরামর্শও দেন। তিনি বলেন, যুদ্ধের টালমাটাল এ সময়ে বাংলাদেশ যে অন্যান্য দেশের তুলনায় কতটা ভালো আছে, তা সাধারণ মানুষের কাছে সবিস্তারে তুলে ধরার মাধ্যমেই অপপ্রচারকারীদের মোকাবিলা সম্ভব।
মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি কিশোয়ার জাহান সৌরভের সভাপতিত্বে ও সংগঠনের জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক রাহেল সিরাজের পরিচালনায় শুভেচ্ছা বক্তৃতা করেন জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি নাজমুল ইসলাম ও মহানগরের সাধারণ সম্পাদক নাঈম আহমদ।

সম্প্রতি নানা বক্তব্যের জন্য আলোচিত-সমালোচিত হওয়ার পর পররাষ্ট্রমন্ত্রী এই প্রথম শুক্রবার নিজের নির্বাচনী এলাকা সিলেট আসেন। দুপুরে বিমানে সিলেটে পৌঁছার পর আওয়ামী লীগের বিভিন্ন পর্যায়ের কিছু নেতা স্বাগত জানালেও জেলা ও মহানগরের শীর্ষ নেতাদের কেউ ছিলেন না। বিকেলে ছাত্রলীগের আলোচনা সভার ব্যানারে অতিথি হিসেবে আওয়ামী লীগের জেলা ও মহানগরের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক ১১ জনের নাম থাকলেও ৭ জনই উপস্থিত ছিলেন না।

ছাত্রলীগের আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, আশফাক আহমদ, আসাদ উদ্দিন আহমদ, অধ্যক্ষ সুজাত আলী রফিক, বিধান কুমার সাহা, অ্যাডভোকেট রনজিত সরকার, অ্যাডভোটে সালেহ আহমদ সেলিম, জেলা যুবলীগের সভাপতি শামীম আহমদ, মহানগরের সভাপতি আলম খান মুক্তি, জেলার সাধারণ সম্পাদক শামীম আহমদ, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি আফসর আজিজ খান, মহানগরের সভাপতি কাউন্সিলর আফতাব হোসেন খান, সাধারণ সম্পাদক দেবাশু দাস মিঠু প্রমুখ।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net