ত্রুটি সারিয়ে গুগল পিক্সেলে অ্যান্ড্রয়েড ১৪— এর নতুন সংস্করণ

IPL ের সকল খেলা  লাইভ দেখু'ন এই লিংকে  rtnbd.net/live

অ্যান্ড্রয়েড ১৪ এর পাবলিক বেটা সংস্করণ প্রকাশের দুই সপ্তাহ পর গুগলের পিক্সেল ফোনের জন্য আনা হয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ১৪ বেটা ১ দশমিক ১ সংস্করণ। অ্যান্ড্রয়েড ১৪ হালনাগাদের কারণ হলো, অ্যান্ড্রয়েডের ১৪—     এর বেটা সংস্করণে অনেকগুলো ত্রুটি শনাক্ত করা হয়েছিল। নতুন এই আপডেটে ত্রুটিগুলো ঠিক করা হয়েছে। প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট নাইনটুফাইভের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ব্যবহারকারীরা জানিয়েছিলেন যে, অ্যান্ড্রয়েড ১৪- এর বেটা সংস্করণে ওয়ালপেপারে অনেক সমস্যা দেখা যায়। হোম স্ক্রিন থেকে সিস্টেম ইউআইতে যেতে অনেক সময় লাগে। ফিঙ্গারপ্রিন্ট নিয়েও সমস্যার কথা জানিয়েছিলেন ব্যবহারকারীরা। এ ছাড়া, কিছু ব্যবহারকারী সিম কার্ড বা ই-সিম অ্যাকটিভেট করতে পারছিলেন না। নতুন আপডেটে এসব সমস্যার কথা জানিয়েছে গুগল। গত ফেব্রুয়ারিতে অ্যান্ড্রয়েড ১৪— এর প্রথম ডেভেলপার প্রিভিউ চালু করে গুগল। পিক্সেল ৪এ ও অন্যান্য ডিভাইসে এই সংস্করণ ব্যবহার করতে পারছেন ব্যবহারকারীরা। নতুন এই সংস্করণে থাকা বিভিন্ন সুবিধার মধ্যে অন্যতম একটি হলো প্রি-ইনস্টলড অ্যাপ মুছে ফেলার সুবিধা। প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট টেকটাইমস এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, অ্যান্ড্রয়েড ফোনে আগে থেকে ইনস্টল করে রাখা অ্যাপসের অধিকাংশই অব্যবহৃত অবস্থায় পড়ে থাকে। এসব অ্যাপের কিছু আনইনস্টল করা গেলেও সব অ্যাপ মুছে ফেলা বা আনইনস্টল করা সম্ভব হয় না। তবে অ্যান্ড্রয়েড ১৪-এ ‘অ্যাপস ইনস্টলড ইন দ্য ব্যাকগ্রাউন্ড’ নামের একটি গোপন মেন্যুর মাধ্যমে এই সমস্যাটি সমাধানের সুবিধা আনা হচ্ছে। তবে ভবিষ্যতে সরাসরি এই মেন্যুটি পাওয়া যাবে বলে আশা করা হচ্ছে।গুগল জানায়, ডিভাইস উৎপাদনকারী ও তাদের সহযোগীদের কারণে স্মার্টফোনে আগে থেকে বিভিন্ন অ্যাপ ইনস্টল করা থাকে। মোবাইল ফোনে আগে থেকে ইনস্টল থাকা সব অ্যাপ থাকার প্রয়োজন নেই। ব্যবহারকারী চাইলে সেগুলো ডিলিট বা আনইনস্টল করতে পারবেন।বিগত বছর অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ্লিকেশনগুলোর নিরাপত্তা আরও বাড়ানোর ঘোষণা দেয় টেক জায়ান্ট গুগল। ফলে, চলতি বছর থেকে থার্ড পার্টি অ্যাপ্লিকেশনগুলো আর গুগলের কোনো অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহারকারীর ব্রাউজিং হিস্ট্রি অনুমতি ছাড়া ট্র্যাক করতে পারবে না। এক ব্লগ পোস্টে গুগল এই তথ্য জানায়।গুগল তাঁদের অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেমে ব্যবহৃত ক্রোম ব্রাউজারে ‘ডেটা ট্র্যাকিং’ সীমিত করার পরিকল্পনা করেছিল। ক্রমান্বয়ে অন্যান্য অ্যাপ্লিকেশনগুলোতেও ‘ডেটা ট্র্যাকিং’ সীমিত করার পদক্ষেপ নেওয়ার কথাও জানিয়েছিল গুগল। গুগলের এই তথাকথিত ‘স্যান্ডবক্স প্রকল্পের’ লক্ষ্য হলো— ব্যবহারকারীর ডেটার পরিমাণ কমানো, যাতে বিজ্ঞাপনদাতারা এসব তথ্য কম সংগ্রহ করতে পারে। Great)

Check Also

গাজীপুর সিটি নির্বাচন: লাঙলের প্রার্থীর ইশতেহার ঘোষণা

গাজীপুর সিটি করপোরেশনকে একটি পরিকল্পিত নগর হিসাবে গড়ে তোলার অঙ্গীকার করে ইশতেহার ঘোষণা করেছেন সিটি …