‘ছাত্র লাগবে না, টেবিল পড়ালেও সরকারি বেতন বন্ধ নাই’

‘ছাত্র লাগবে না, টেবিল পড়ালেও সরকারি বেতন বন্ধ নাই’

নানা অনিয়মে চলছে বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার বাগধা ইউনিয়নের ৭৮নং দক্ষিণপূর্ব আস্কর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। শিক্ষকরা নিয়মিত স্কুলে আসেন না। আসলেও কেউ সময় মতো আসেন না। শিক্ষার্থীর সংখ্যাও অনেক কম।

স্থানীয়দের অভিযোগ, শিক্ষকরা ইচ্ছা মতো স্কুলে আসেন আবার চলে যান। কিছু জিজ্ঞেস করলে বিভিন্ন অজুহাত দেখিয়ে প্রসঙ্গ এড়িয়ে যান। কেউ বলেন তার স্বজন অসুস্থ। কেউ বলেন স্কুলে আসার জন্য নৌকা পাননি। মূলত প্রান্তিক পর্যায়ে স্কুলটি প্রতিষ্ঠিত হওয়ায় শিক্ষকরা ঠিকমতো স্কুলে না এসে বেতন তুলে নেন।

অভিযোগ রয়েছে, কাগজে-কলমে প্রথম থেকে পঞ্চম পর্যন্ত ৪৫ জন শিক্ষার্থী থাকলেও বাস্তবে সর্বোচ্চ ৮/১০ জন শিক্ষার্থী রয়েছে এই স্কুলে। এছাড়া বিদ্যালয়ে বসে দুপুরের খাবার রান্না করে খান শিক্ষক-কর্মচারীরা।

স্কুলের এক শিক্ষার্থীর অভিভাবক পপি হালদার বলেন, আমি শিক্ষকদের বলেছি অনেক ভরসা করে আপনাদের এখানে আমার সন্তান দিয়েছি। কিন্তু ঠিকমতো এখানে লেখাপড়া হয় না। তারা বলেন- ‘তোমাগো মাইয়া-পোলা স্কুলে আসুক আর না আসুক তাতে আমাগো কিছু আসে-যায় না। আমরা টেবিল পড়ালেও সরকারি বেতন মাইর (বন্ধ) নাই।’ কিন্তু শিক্ষকরাতো এমন কথা বলতে পারেন না।

আরেক অভিভাবক আরতি রাণী বলেন, এই প্রাথমিক বিদ্যালয়টি এই অঞ্চলের শিক্ষার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু এখানে লেখাপড়া তেমন হয় না। শিক্ষকরা বলেন, ‘আমাগো ছাত্র লাগবে না-একজন ছাত্র থাকলেই হবে।’ আমরা বেতনতো পাব।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net