মাইকিং করে স্কুলছাত্রীকে ইভটিজিং

মাইকিং করে স্কুলছাত্রীকে ইভটিজিং

ময়মনসিংহের ফুলবাড়ীয়া উপজেলার আন্ধারিয়াপাড়া হুকুমচান্দা গ্রামে দশম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রী ইভটিজিয়ের ভয়ে ক্লাসে যেতে পারছেন না বলে অভিযোগ উঠেছে শাওন নামে এক যুবকের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগীর পরিবার অভিযোগ দায়ের করেছেন।

বুধবার (১৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ফুলবাড়ী থানার অফিসার মো. আবুল কালাম আজাদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অভিযুক্ত শাওন মিয়া উপজেলার আন্ধারিয়াপাড়া হুকুমচান্দা গ্রামের বাসিন্দা।

ভুক্তভোগীর বড় বোন জানান, আমাদের গ্রামের আব্দুল রশিদের নাতি শাওন মিয়া গত পাঁচ মাস ধরে আমার ছোট বোনকে বিরক্ত করে। রাস্তায় বের হলে মোবাইল ফোনে এসএমএস করে। এ বিষয়ে তার অভিভাবককে জানানো হলেও তারা কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। সোমবার (১২ সেপ্টেম্বর) হালখাতা ছিল। পরে দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত শাওন মাইকে আমার বোনের নাম নিয়ে গান গায়। সন্ধ্যার পরে আমার বাবা তাদের বাড়ি গিয়ে প্রতিবাদ জানালে, তারা আমাদের ওপর হামলা করে। এ সময় আমাদের চাচা রক্ষা করতে আসলে তার ওপর হামলা করেন।

তিনি জানান, এ ঘটনার কিছুক্ষণ পর অস্ত্রসহ আমাদের বাড়ির সামনে হামলা চালায় ও আমাদের এলাকার চেয়ারম্যানের বাড়ির সামনে দাড়িয়ে হুকুম দেয়। এ সময় ৯৯৯ নাম্বারে কল দিলে পুলিশ এসে আমাদের রক্ষা করেন। তবে পুলিশ চলে যাওয়ার পর রাত থেকে সারাদিন তারা আমাদের বাড়ি ঘেরাও করে রাখে। আমার বাবা অফিসে যেতে পারে না। আমার বোন ভয়ে স্কুলে যেতে পারছে না। আমি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ছি। দুদিন ধরে আমিও ভয়ে ক্লাসে যেতে পারছি না।

তিনি আরও বলেন, এ ঘটনার বিষয়টি এলাকার চেয়ারম্যানকে জানালে তিনি কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। তবে ঘটনার দিন বিকেলে আমার চার বছরের ছেলে রাস্তায় খেলতে বের হলে শাওনের বড় মামা লাঠি নিয়ে তারা করে। এ ছাড়া অভিযুক্ত শাওনের ছোট ভাই রাকিব সন্ধ্যায় মোবাইলে ফোন দিয়ে আমাদের হত্যা করার হুমকি-দেয়।

ফুলবাড়ী থানার অফিসার মো. আবুল কালাম আজাদ জানান, এ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ভুক্তভোগীরা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। একই সঙ্গে অভিযুক্ত শাওনও তাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছেন। এ ঘটনাটি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved © 2017 RTNBD.net